16.9 C
New York

স্ত্রীসহ ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

Published:

সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার গাঁড়াদহ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলাম (৪৬) ও তার স্ত্রী জোমেলা খাতুনের (৪১) বিরুদ্ধে পৃথক দুটি মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

বুধবার (২০ মার্চ) দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয় পাবনা উপ-সহকারী পরিচালক মনোয়ার হোসেন বাদী হয়ে এ দুটি মামলা করেন।

সাইফুল ইসলাম গাঁড়াদহ ইউনিয়নের মশিপুর গ্রামের শাহাদাত হোসেনের ছেলে। বর্তমানে তিনি ওই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয় পাবনার উপ-পরিচালক খায়রুল জানান, সাইফুল ইসলাম তার দাখিল করা সম্পদ বিবরণীতে স্থাবর ও অস্থাবর তিন কোটি ২০ লাখ ৭ হাজার ৮৫৯ টাকার সম্পদের তথ্য প্রদর্শন না করে গোপন করেছেন। সেই সঙ্গে মিথ্যা তথ্য প্রদানসহ ৩ কোটি ২০ লাখ ৭ হাজার ৮৫৯ টাকার জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন করে আইন অনুযায়ী শাস্তিযোগ্য অপরাধ করেছেন।

অপরদিকে সাইফুল ইসলামের স্ত্রী জোমেলা খাতুন তার দাখিল করা সম্পদ বিবরণীতে স্থাবর ও অস্থাবর মোট ৩৪ লাখ ৩০ হাজার ৭৯৯ টাকার সম্পদের তথ্য প্রদর্শন না করে গোপন করেছেন।

মামলার বিবরণে বলা হয়, প্রাথমিক অনুসন্ধান শেষে দুদকের প্রধান কার্যালয়ের নির্দেশনা মোতাবেক পাবনা সমন্বিত কার্যালয়ে ২০২৩ সালের ১২ মে সাইফুল ইসলামকে তার নিজের, স্ত্রীর এবং তার ওপর নির্ভরশীল ব্যক্তিদের যাবতীয় স্থাবর বা অস্থাবর সম্পত্তি, দায়দেনা, আয়ের উৎস এবং সম্পদ অর্জনের বিস্তারিত বিবরণী দাখিল করতে বলা হয়েছিল। সেই প্রেক্ষিতে সাইফুল ইসলাম ও তার স্ত্রী সম্পদের যে বিবরণ দেন তার আলোকে তদন্ত করে দুদক এ মামলা দুটি দায়ের করেন।

গাঁড়াদহ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সাইফুল ইসলাম জাগো নিউজকে বলেন, দীর্ঘ ১৫ বছর ধরে এক টানা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছি। সে হিসেবে আমার ও স্ত্রীর নামে কিছু সম্পদ থাকতেই পারে। তবে এ কারণে আমাদের বিরুদ্ধে দুদকে মামলা হয়েছে কিনা তার জানা নেই।

এম এ মালেক/আরএইচ/জিকেএস

পাঠকপ্রিয় অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগোনিউজ২৪.কমে লিখতে পারেন আপনিও। লেখার বিষয় ফিচার, ভ্রমণ, লাইফস্টাইল, ক্যারিয়ার, তথ্যপ্রযুক্তি, কৃষি ও প্রকৃতি। আজই আপনার লেখাটি পাঠিয়ে দিন [email protected] ঠিকানায়।

Related articles

Recent articles

spot_img