-0.8 C
New York

‘শেষ বল পর্যন্ত লড়তে চাওয়া’ ইমরান কি রাজনীতিতে টিকে যাবেন

Published:

সপ্তম শতক থেকে চতুর্দশ শতক পর্যন্ত ইসলামের স্বর্ণযুগ ছিল। এ সময় মুসলিম বিশ্ব সাংস্কৃতিক, অর্থনৈতিক ও বৈজ্ঞানিকভাবে ব্যাপক অগ্রগতি পেয়েছিল। ইসলামের এই স্বর্ণযুগের আদলে পাকিস্তানকে নতুন করে গড়ে তুলতে দেশের মানুষকে স্বপ্ন দেখিয়েছিলেন ইমরান।

তবে সংকটময় পাকিস্তানের অর্থনীতিকে টেনে তুলতে তেমন কিছুই করে দেখাতে পারেননি ইমরান। সে সময় উচ্চ মূল্যস্ফীতি, বিপুল বৈদেশিক ঋণ ও রুপির দুর্বল মানের কারণে চরম দুর্দশায় ছিলেন পাকিস্তানিরা। এই সুযোগ কাজে লাগিয়েই পার্লামেন্টে ইমরানের বিরুদ্ধে অনাস্থা ভোটের আহ্বান জানিয়েছিল পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি) ও পাকিস্তান মুসলিম লিগ–নওয়াজ (পিএমএল–এন)।

পাকিস্তানের রাজনীতিতে ব্যাপক আধিপত্য থাকা এই পিপিপি ও পিএমএল–এনকে হটিয়েই ২০১৮ সালে ক্ষমতায় এসেছিলেন ইমরান। প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পরও দল দুটির অনেক নেতার ওপর চড়াও হয়েছিলেন তিনি। তাঁদের অনেক নেতাকে দুর্নীতির অভিযোগে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছিল। তবে ইমরানের পতনের পর পিএমএল-এন নেতা নওয়াজ শরিফসহ অনেকে মুক্তি পেয়েছেন।

ইমরান খান ক্ষমতায় থাকাকালে গণমাধ্যমের স্বাধীনতার ওপরও হস্তক্ষেপ করেছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠনের। তবে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তাঁর সবচেয়ে বড় ভুল ছিল পাকিস্তানের সামরিক বাহিনীর সঙ্গে দ্বন্দ্বে জড়ানো। বলা হয়ে থাকে, পাকিস্তানে কোনো দলের ক্ষমতায় আসা কিংবা সরকার থেকে পতন নির্ধারণ করে থাকে এই সামরিক বাহিনী।

Related articles

Recent articles

spot_img