19.3 C
New York

যে তিন বিষয়ের সুরাহা ছাড়া ব্যাংক একত্রীকরণ সফল হবে না

Published:

পরপর দুজন অর্থমন্ত্রীর উপলব্ধি ও ঘোষণা এবং বিশেষজ্ঞদের ক্রমাগত পরামর্শের পরও এ বিষয়ে কোনো কার্যকর পদক্ষেপ নিতে চার বছরের বেশি সময় লেগে যায়। বর্তমান বাংলাদেশ ব্যাংকের নতুন নেতৃত্ব বিষয়টিকে গুরুত্বের সঙ্গে গ্রহণ করে এই প্রয়োজনীয় মেরামতি কাজটি শুরু করে দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিয়েছেন বলা যায়।

ব্যবসা কৌশলের অংশ হিসেবে ইংরেজিতে মার্জার ও অ্যাকুইজিশন (অধিগ্রহণ)—দুটি পরিভাষা প্রায় একসঙ্গে ব্যবহৃত হলেও এই দুটির মধ্যে যথেষ্ট পার্থক্য রয়েছে।

সাধারণ পাঠকদের জন্য জানানো প্রাসঙ্গিক যে একত্রীকরণ (মার্জার) বলতে বোঝায় ব্যবসায়িক কৌশল ব্যবস্থাপনার অংশ হিসেবে অধিকতর শক্তিশালী হওয়া, নতুন বাজার দখল করা, পরিচালন ব্যয় কমিয়ে বেশি মুনাফা অর্জন ইত্যাদি উদ্দেশ্যে চুক্তির মাধ্যমে দুটি প্রতিষ্ঠানের একক মালিকানার অংশ হওয়া। এটি সাধারণত ঘটে দুই প্রতিষ্ঠানের স্বায়ত্ত সিদ্ধান্তের মাধ্যমে, যা বিশ্বব্যাপী খুব সাধারণ ও স্বীকৃত একটা ব্যবসায়িক কৌশল।

অন্যদিকে যখন কোনো প্রতিষ্ঠান অন্য একটা প্রতিষ্ঠানের সমুদয় কিংবা অধিকাংশ শেয়ার কিনে নেয়, সেটিকে অধিগ্রহণ বলা হয়। অধিগৃহীত প্রতিষ্ঠানটির শেয়ারমালিকেরা সম্পূর্ণ মালিকানা ছেড়ে দিতে পারেন, কিংবা কোনো ক্ষেত্রে ক্রেতাপ্রতিষ্ঠানে অবস্থানও করতে পারে সংখ্যালঘু অংশীদার হিসেবে।

আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে ব্যাংক একত্রীকরণের বহু দৃষ্টান্ত উপস্থাপন করা যায়। তবে সেগুলোর প্রেক্ষিত ছিল ভিন্ন। ভারতের উদাহরণ ধরলে ১৯৬৯ থেকে ২০২০ সাল পর্যন্ত দেশটিতে মোট ৩৪টা ব্যাংক একত্রীকরণের দৃষ্টান্ত রয়েছে। এসবের মধ্যে বাধ্যতামূলক এবং ঐচ্ছিক উভয় ধরনের একত্রীকরণ আছে।

Related articles

Recent articles

spot_img